রাজ্য

ডায়মন্ড হারবারে কোয়ারেন্টাইন কেন্দ্র নতুন করে চালু হলো

Bangla24x7 Desk: ডায়মন্ড হারবারঃ রাজ্যের পাশাপাশি আমাদের জেলাতেও করোনা আতঙ্ক ব্যাপক আকারে ছড়িয়ে পড়েছে। তারওপর করোনা আক্রান্ত রাজ্য থেকে শ্রমিকরা ঘরে ফিরতে থাকায় আমাদের জেলায় করোনা সংক্রমণের আক্রান্ত তৈরি হয়েছে। সেই আবহে ডায়মন্ড হারবার মহকুমায় মারণ ভাইরাসের সংক্রমণ রুখতে একাধিক উদ্যোগ নিয়েছেন মহকুমাশাসক। আগেই ডায়মন্ড হারবার মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে তৈরি করা হয়েছিল আইসোলেশন ওয়ার্ড ও কোয়ারেন্টাইন সেন্টার। ইতিমধ্যেই হাসপাতালে সঠিকভাবে চিকিৎসার জন্য মোতায়েন করা হয়েছে ৬ চিকিৎসকের বিশেষটিম। থার্মাল স্ক্যানারের সাহায্যে করোনা আতঙ্কে ভর্তি হওয়া যে কোন ব্যক্তির পরিক্ষা করে দেখা হচ্ছে।

পরিস্থিতির উপর নজর রেখে ডায়মণ্ড হারবার মহকুমা প্রশাসনের উদ‍্যোগে পুরএলাকার ‘মেঘনা ভবন’ উত্তর হাজিপুরে কর্মতীর্থ ভবনে ৮০ ও ২ নং ব্লকের ‘সদভাব মণ্ডপে’ ৫০টি শয‍্যা বিশিষ্ট কোয়ারেন্টাইন কেন্দ্র তৈরি করা হয়েছে। রবিবার এই কোয়ারেন্টাই কেন্দ্রগুলির ব্যবস্থাপনা খতিয়ে দেখলেন ডায়মন্ড হারবার মহকুমার ডেপুটি মেজিস্ট্রেট অজয় সেনগুপ্ত, ১ নং ব্লকের বিডিও মিলনতীর্থ সামন্ত, ১ নং পঞ্চায়েত সমিতির পূর্তের কর্মাধ্যক্ষ গৌতম অধিকারী, পুরসভার প্রশাসক কমিটির সদস্য ও বিদায়ী কাউন্সিলাররা। করোনার সর্তকতা হিসাবে কি কি করণীয় তা নিয়ে একটি মেডিক্যাল ক‍্যাম্পেরও আয়োজন করা হয়। এদিন ডায়মন্ড হারবার ১ নং ব্লকের বিডিও জানান, আমাদের সব এলাকায় স্বাস্থ্য কর্মীরা কাজ করছে। আর যেসব লোকেরা অন্য জেলা বা অন্য রাজ্য থেকে আসছে তাদের সাথে আমরা প্রতিনিয়িত যোগাযোগা করে চলেছি। কোন মানুষ যাতে কোন সমস্যায় না পড়ে সর্বক্ষন আমরা খেয়ালে রাখছি। এছাড়া আমদের ব্লকে নতুন কোয়ারেন্টাইন গুলো চালু করলাম। যাতে বাইরে থেকে আসা কোন মানুষের কোন দুর্ভোগে না পড়তে হয়। সেদিকে খেয়াল রেখে ডায়মন্ড হারবারে আপাতত প্রায় ১৩০ টি কোয়ারেন্টাইন বেড চালু কড়া হলো।

পরে সংবাদ মাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে গৌতম অধিকারী বলেন “মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশে প্রশাসন প্রস্তুত রয়েছে, সাংসদ অভিষেক ব্যানার্জী প্রতিনিয়ত এলাকার বাসিন্দাদের খোঁজ খবর নিচ্ছেন। যেকোন রকম চিকিৎসা দিতে চিকিৎসক থেকে স্বাস্থ কর্মীরা প্রস্তুত রয়েছেন। অযথা আতঙ্কিত হওয়ার দরকার নেই। তবে সচেতন থাকুন। এর পাশাপাশি তিনি এও বলেন বাইরে থেকে আসা কোন মানুষের কোন দুর্ভোগে না পড়তে হয় সেদিকে খেয়াল রেখে ডায়মন্ড হারবারে আপাতত প্রায় ১৩০ টি কোয়ারেন্টাইন বেড চালু কড়া হলো। ভবিষতে সেরকম হলে আমরা এই বেডের সংখ্যা বাড়াতে পারি প্রশাসনের সাথে কথা বলে।

Follow Me:

Related Posts