রাজ্য

রায়দিঘিতে ত্রাণের দাবিতে বিক্ষোভ করায় স্থানীয়দের মারধর , প্রতিবাদে পঞ্চায়েত ঘেরাও

Bangla 24×7 Desk : আমফানের ত্রাণ নিয়ে দুর্নীতির অভিযোগে মথুরাপুর ২ নম্বর ব্লকের নন্দকুমারপুর গ্রাম পঞ্চায়েতে ধুন্দুমার বেঁধে গিয়েছিল মঙ্গলবার। স্থানীয়দের বিক্ষোভের মুখে পড়ে কান ধরে নিজের ভুল স্বীকার করে এক পঞ্চায়েত সদস্য। এই ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতেই বুধবার ফের স্থানীয়দের বিক্ষোভে উত্তাল হয়ে উঠল নন্দকুমারপুর।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে , মঙ্গলবারের বিক্ষোভের পর স্থানীয় গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান জোৎস্না পাত্র ও তাঁর স্বামী মনোরঞ্জন পাত্রের মদতে বেশ কিছু দুষ্কৃতী রাতের অন্ধকারে বিক্ষোভকারীদের ব্যাপক মারধর করে বলে অভিযোগ। এরই প্রতিবাদে বুধবার পঞ্চায়েতের সামনে বিক্ষোভ দেখান এলাকার শ’য়ে শ’য়ে মানুষ। ফের বিক্ষোভ হচ্ছে জানতে পেরে পঞ্চায়েত প্রধানের স্বামী মনোরঞ্জন পাত্র লোকজন নিয়ে হাজির হয়।

এরপর দুপক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ শুরু হয়। স্থানীয়রা উত্তেজিত হয়ে পঞ্চায়েত অফিসে ভাঙচুর ও চালাতে থাকে। ঘটনার খবর পেয়েই রায়দিঘি থানার বিশাল পুলিশ বাহিনী ও মথুরাপুর ২ নম্বর ব্লকের বিডিও আসেন ঘটনাস্থলে। মারমুখী জনতার হাত থেকে পঞ্চায়েত প্রধানের স্বামীকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায় পুলিশ। এই ঘটনাকে ঘিরে শাসক-বিরোধী চাপানউতোর তুঙ্গে।

Follow Me:

Related Posts