মহানগর স্বাস্থ্য

করোনা আতঙ্কের গ্রাসে কলকাতা, আরও তিন জন হাসপাতালের আইসোলেশনে

Bangla24x7 Desk : দুই ডাক্তারি পড়ুয়া করোনার উপসর্গ নিয়ে ভরতি হল নীলরতন সরকার হাসপাতালে । বুধবার রাতে হাসপাতালে পাঠানো হয় তাঁদের শরীরে উপসর্গ পরীক্ষা করতে । এরপর তাঁদের আইসোলেশন ওয়ার্ডে ভরতি করে নেওয়া হয় । দুই ছাত্রীর লালারসের নমুনা নাইসেডে পরীক্ষা করতে পাঠানো হয়েছে। শুক্রবার পরীক্ষার রিপোর্ট আসবে। এক বিদেশ ফেরত যুবককে আর জি কর হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডে ভরতি করা হয়েছে। বেলেঘাটা আইডিতে আরও ২৫ জনকে আইসোলেশনে রাখা হয়েছে। কলকাতায় মোট ২৭ জন করোনা আক্রান্ত সন্দেহে আইসোলেশনে রয়েছেন । তবে কলকাতার বাসিন্দারা আতঙ্কে আছে রাতারাতি এই সংখ্যা বাড়তে পারে। 

কলকাতায় মঙ্গলবার প্রথম করোনা আক্রান্তের খোঁজ মেলে। নবান্নের এক আমলার ছেলে লন্ডন থেকে করোনার উপসর্গ নিয়ে ফিরলেও হাসপাতালে ভর্তি না হয়ে কলকাতায় একাধিক জনবহুল জায়গায় ঘুরে বেড়ায় ও মায়ের সাথে নবান্নে যায় একাধিক ব্যাক্তির সংস্পর্শে আসে । অবশেষে মঙ্গলবারই তাঁকে বেলেঘাটা আইডিতে ভরতি করা হয়। তাঁর পরিবারের সদস্যদের পরীক্ষা করা হয়। তবে তাঁর পরিবারের সদস্যদের দেহে করোনার উপস্থিতির হদিশ মেলেনি। রাজারহাট কোয়ারেন্টাইন সেন্টারে তাঁদের আগামী ১৪দিন রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। ওই আমলা পুত্রের কাগজপত্র পরীক্ষা করায় ১২ দিনের জন্য বিমানবন্দরের দুই অভিবাসন কর্তাকে কোয়ারেন্টাইন পাঠানো হয়েছে।

নীলরতন সরকার হাসপাতালে ভরতি এক পড়ুয়া । জানা গিয়েছে তাঁর বাড়ি কেরালাতে । তিনি আহমেদ ডেন্টার কলেজের পড়ুয়া। বুধবার রাতে করোনার উপসর্গ দেখা যায় তাঁর শরীরে । সময় নষ্ট না করে ডেন্টাল কলেজের প্রিন্সিপাল বেলেঘাটা আইডিতে ফোন করেন। কিন্তু সেখানেও ৪০ শয্যাবিশিষ্ট আইসোলেশন ওয়ার্ডে ২৫ জনের বেশি রোগী রয়েছেন। বাকি শয্যাগুলি জরুরি পরিস্থিতির জন্য রাখা রয়েছে। বেলেঘাটা আইডি কর্তৃপক্ষ জানিয়ে দেন ওই দুই ছাত্রীকে ভরতি নিতে পারবেন । তাঁরপর নীলরতন সরকার হাসপাতালে ফোন করা হয়। তাঁরা দুই ছাত্রীকে পরীক্ষা করে এবং সঙ্গে ভরতি করে নেন। এদিকে ন্যাশানাল মেডিক্যাল কলেজে বুধবারই বিদেশ থেকে ফিরে আসা এক ব্যক্তি শারীরিক পরীক্ষা করতে এসেছিলো । তাঁকে আপাততও আর জি করে পাঠানো হয়েছে । তাঁকে বর্তমানে হাসপাতালের আইসোলেশনে রাখা হয়েছে।

Follow Me:

Related Posts