রাজ্য

সাগরে আমফানের ত্রাণ বিতরনে স্বজনপোষণের অভিযোগ ! স্থানীয় পঞ্চায়েত অফিসে ব্যাপক ভাঙচুর এলাকাবাসীর , গ্রেপ্তার ২০

Bangla 24×7 Desk : আমফানের ত্রান বিলি নিয়ে স্বজনপোষণের অভিযোগে ব্যাপক উত্তেজনা ছড়াল পঞ্চায়েত অফিসে । চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে সাগরের ধসপাড়া সুমতিনগর ১ নং গ্রাম পঞ্চায়েত অফিসে । বিক্ষোভ চলাকালীন পঞ্চায়েত অফিসে ব্যাপক ভাঙচুর করা হয় বলে অভিযোগ । পঞ্চায়েত সদস্যের বাড়িতেো তাণ্ডব চালাতে পিছপা হয়নি উত্তেজিত জনতা ।

জানা গেছে , অতর্কিতে হামলা চালানো হয় পঞ্চায়েত সদস্যের বাড়িতে । বাড়ির বিভিন্ন আসবাবপত্র , ফ্রিজ , বিছানাপত্র সহ বিভিন্ন জিনিসপত্র ভাঙচুর করে উত্তেজিত জনতা ও আগুন ঢেলে পুড়িয়ে দেয় । পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে ঘটনাস্থলে এসে উপস্থিত হয় বিশাল পুলিশ বাহিনী । পরিস্থিতি সামাল দিতে লাঠিচার্জ করে পুলিশ ।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে , আমফানে ক্ষতিগ্রস্তদের যে নামের তালিকা তৈরি করেছে পঞ্চায়েত সেখানে প্রকৃত ক্ষতিগ্রস্তদের নাম নেই , নাম রয়েছে স্থানীয় পঞ্চায়েত প্রধান ও পঞ্চায়েত সদস্যদের আত্মীয়দের নাম । এই অভিযোগ তুলে এলাকার কয়েক হাজার মানুষ বিক্ষোভে সামিল হয় ।

ত্রাণ নিয়ে দুর্নীতির অভিযোগে সাগরের ধসপাড়া সুমতিনগর ১ নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েত অফিসে ভাঙচুরের ঘটনায় ২০ জনকে গ্রেফতার করে সাগর থানার পুলিশ। এছাড়াও ১৫০ জনের বিরুদ্ধে এফআইআর করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার ধৃতদের কাকদ্বীপ মহকুমা আদালতে তোলার সময় ৪ জনকে নিজেদের হেফাজতে নেওয়ার আবেদন জানায় পুলিশ।

এদিন বিচারক ধৃত প্রলয় জানা , সীমন্ত মুনিয়ান , শেখ মইউদ্দিন ও শঙ্কর মাইতিকে ৭ দিনের পুলিশ হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছেন। বাকি ১৬ জনকে ১৪ দিনের জেল হেফাজতের নির্দেশ দেওয়া হয়। এদিকে যাদের বিরুদ্ধে এফআইআর করা হয়েছে এলাকায় তাদের খোঁজ চালাচ্ছে সাগর থানার পুলিশ। ঘটনার পর ২৪ ঘন্টা কেটে গেলেও এখনও এলাকায় চাপা উত্তেজনা থাকায় বিশাল পুলিশ বাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে ৷

Follow Me:

Related Posts